ছেলেকে পেটানোর গল্প শোনালেন তাসকিনের বাবা

খেলাধুলার বিবিধ 04 May 2020 at 4:29pm 626
Googleplus Pint
ছেলেকে পেটানোর গল্প শোনালেন তাসকিনের বাবা

করোনা দুর্গতদের সাহায্যের জন্য নিলামে তোলা হয়েছিল তাসকিন আহমেদের হ্যাটট্রিক করা বল। আর নিজের একমাত্র (শ্রীলঙ্কা ২০১৭) হ্যাটট্রিকের বলটা ৪ লাখ টাকায় বিক্রি করে দিয়েছেন এই পেসার।

গতকাল ‘অকশন ফর অ্যাকশন’ এর পেইজে নিলাম অনুষ্ঠিত হওয়ার সময় লাইভে আসেন তাসকিন আহমেদ ও তার বাবা আব্দুর রশিদ। অগণিত ভক্তদের মাঝে ছেলেবেলায় তাসকিনকে পেটানোর গল্প জানান তার বাবা।

ছোট বেলা থেকে খেলার জন্যে প্রবল ইচ্ছে ছিল তাসকিন আহমেদ। যার কারণে বানিজ্য মেলায় অন্য ছেলে মেয়ের মতো গাড়ি বা অন্য খেলনার কোন জিনিস কেনার আবদার না করে ব্যাট-বল কেনার আবদার করেন তাসকিন। বাবা কিনেও দেন। কিন্তু তা নিয়ে সারাদিন মাঠে কাটিয়ে দেন এই ডানহাতি।

একদিন বাবা দেখলেন প্রচন্ড রোদে খেলছেন তাসকিন। এরপর রেগে গিয়ে নিজের কিনে দেওয়া ব্যাট ভেঙে পেলেন তাসকিনের বাবা। তাকে প্রচন্ড মারধরও করেছেন।

তবে তাসকিন আহমেদের ক্রিকেটে আসার পেছনে বড় অবদানও তার বাবা আব্দুর রশিদের। প্রথমে তেমন গুরুত্ব না দিলেও পর্যায়ক্রমে একে অপরের বন্ধু বনে যান। এখনো দুঃসময়ে বাবার হাতটা কাঁদে থাকে তাসকিনের।

এ নিয়ে তাসকিনের বাবা আব্দুর রশিদ বলেন, “ছোটবেলায় তাসকিনকে নিয়ে গিয়েছিলাম আগারগাওয়ে, বানিজ্য মেলা হত সেখানে। অন্য বাচ্চারা মেলায় গেলে গাড়ি বা অন্যকিছু কিনতে চাইতো। কিন্তু ওর টার্গেটই ছিল ব্যাট বল। আমি কিনেও দিয়েছি কিন্তু বাসায় আসার পর হল কি ও এসব নিয়েই মাঠে ২৪ ঘন্টার মধ্যে ১৬ ঘন্টা কাটিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করতো।”

“একদিন আমার ব্যবসায়িক কাজ সেরে বাসায় ফেরার পথে দেখি রোদের মধ্যে ও খেলছে। তো আমি আমার বাইকটা বাসার নিচে রেখেই মাঠের দিকে গেলাম প্রচন্ড রাগ নিয়ে, তো ও আমাকে দেখেই বুঝেছে বাবা রেগে আছে। তাকে ধরে আমি ঐ ব্যাট দিয়েই পেটাতে পেটাতে বাসায় আনি। আর ব্যাটটা তখনই ভেঙে ফেলি।”— যোগ করেন তাসকিনের বাবা।

সূত্রঃ স্পোর্টসজোন২৪

Googleplus Pint
Akash Khan
Manager
Like - Dislike Votes 0 - Rating 0 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)