এক ব্যাক্তি সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠে উযূ করে মসজিদে যাচ্ছে।

ইসলামিক ঘটনা April 20, 2016 3,310
এক ব্যাক্তি সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠে উযূ করে মসজিদে যাচ্ছে।

মসজিদে জামাতে ফজর নামাজ পড়ার জন্য এক ব্যাক্তি সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠে উযূ করে মসজিদে যাচ্ছে। মাঝ পথে সে পা পিছলিয়ে পড়ে গেল। তার কাপড় নষ্ট হয়ে গেল। সে বাসায় ফিরে এসে কাপড় বদলিয়ে আবার উযূ করে মসজিদের দিকে রওয়ানা দিল। মাঝ পথে আবার সে পা পিছলে পড়ে গেল। তার কাপড় ময়লা হয়ে গেল। সে আবার বাসায় গেল কাপর বদলিয়ে উযূ করে মসজিদের দিকে রওয়ানা দিল। মাঝ পথে আসতে লন্ঠন হাতে এক লোকের সাক্ষাত পেল।


লোকটিকে সে জিজ্ঞাস করল, আপনি কে? সে উত্তরে বলল, আমি আপনাকে দুবার পড়ে যেতে দেখলাম তাই ভাবলাম মসজিদে যাওয়ার জন্য আমি আপনার প্রদীপের ব্যবস্থা করে দেই।


লোকটি লন্ঠন হাতে তাকে মসজিদ পর্যন্ত এগিয়ে দিল।

তাকে ইনি বললেন, চলুন নামায পড়ে নেই। লোকটিকে নামায পড়ার জন্য বারংবার বলার পর ও অনেক

পীড়াপীড়ী করার পরও লোকটি নামাজ পড়ল না। তখন

তাকে জিজ্ঞাস করলঃ আপনি নামায পড়া পছন্দ করেন না, বলুন তো আপনি কে?


লোকটি উত্তরে বলল, আমি শয়তান। আমিই আপনাকে ১ম বার পা পিছলিয়ে ফেলে দিয়েছিলাম যাতে মসজিদে নামায না পড়ে আপনি বাড়ী ফিরে যান। কিন্তু আপনি যখন পা পিছলে পড়ে যাওয়ার পর বাড়ীতে গিয়ে ফিরে আসলেন তখন আল্লাহ তালা আপনার সব গোনাহ ক্ষমা করে দিলেন। দ্বিতীয়বার যখন আপনি পড়ে যাওয়ার পর বাড়ীতে গিয়ে কাপড় বদলিয়ে আবার মসজিদের দিকে রওয়ানা দিলেন, তখন আল্লাহ তালা আপনার পরিবারের সবার গোনাহ ক্ষমা করে দেন। এরপরও যখন পড়ে গিয়ে আপনি বাড়ী থেকে কাপড় বদলিয়ে মসজিদে আসছিলেন, তখন আমি ভয় পাচ্ছিলাম, না জানি আল্লাহ তালা এবার আপনার গ্রামবাসীকে ক্ষমা করে দেন। তাই তাড়াতাড়ি আমি লন্ঠন হাতে আপনাকে মসজিদে পৌছে দিয়ে গেলাম।


আল্লাহ্ আকবর।