টিভি রিমোট চাহিয়া স্ত্রীর নিকট স্বামীর আবেদনপত্র

মজার সবকিছু April 18, 2016 1,039

বরাবর


মাননীয়া স্ত্রী

আপন নিবাস, স্বফ্ল্যাট


বিষয়: খেলা চলাকালীন টিভি রিমোট চাহিয়া আবেদন।


মহোদয়া

সবিনয় নিবেদন এই যে আমি আপনার ফ্ল্যাটের আপনার কক্ষে বসবাসকারী আপনারই স্বামী ক্রিকেটমজনু মোতালেব। আপনি জানেন, বাংলাদেশ টাইগারদের সঙ্গে খেলার জন্য ভারতীয় ক্রিকেট দল এ দেশে এসে পৌঁছেছে। শিগগিরই বহুল আলোচিত ক্রিকেট টুর্নামেন্টটি শুরু হতে যাচ্ছে। আপনি আরও জানেন, বিশ্বকাপে এই দুটি দল মুখোমুখি হয়েছিল এবং বাজে আম্পায়ারিংয়ের জন্য আমাদের প্রিয় টাইগাররা ম্যাচটা হেরে গিয়েছিল। এবার তা আর হতে দেওয়া যায় না। এবার মাঠে খেলবে ১১ জন, আর বাকিরা খেলা দেখে তাদের উৎসাহ দিয়ে যাবে। আমার বিশ্বাস, টাইগাররা আমাদের হতাশ করবে না। আমরাও খেলা না দেখে যেন তাদের হতাশ না করি। তাই আমাদের সবার নিয়মিত প্রতিটি ম্যাচ দেখা উচিত। আমি জানি, ম্যাচ চলাকালীন আর ভিনদেশি সিরিয়ালের সময় সাংঘর্ষিক। এ সময় আপনার হাতে রিমোট থাকলে আপনি নিশ্চয়ই বারবার ভিনদেশি চ্যানেলগুলোতে সিরিয়াল দেখতে চলে যাবেন এবং এতে আমার খেলা দেখায় নিদারুণ বিঘ্ন ঘটবে। জাতীয় স্বার্থে, ক্রিকেটের স্বার্থে এমন ঘটনা ঘটতে দেওয়া উচিত নয়।


বিধায় আরজ এই যে খেলা চলাকালীন টিভির রিমোট আমার হাতে দিয়ে ক্রিকেট–স্বার্থে বিশেষ ভূমিকা রাখতে মহোদয়ার মর্জি হয়।


বিনীত নিবেদক


ক্রিকেটমজনু মোতালেব

আপন নিবাস, স্বফ্ল্যাট


স্ত্রীর জবাব

আপনার আবেদনপত্রটি পেয়েছি। ক্রিকেটের প্রতি আপনার নিবেদন প্রশংসার দাবি রাখে। এমন নিবেদন সংসারের প্রতি থাকলে আরও ভালো লাগত। যা–ই হোক, আপনার মনোবেদনা আমি বুঝেছি, এবং তার প্রতিকারও বিধান করেছি। বাংলাদেশ-ভারত টুর্নামেন্টের সব কটি ম্যাচের টিকিট আমি একটা করে কাটিয়ে রাখব। আপনি প্রতিটি ম্যাচ মাঠে বসে আরামসে দেখতে পারবেন এবং প্রতিটি ম্যাচেই টাইগারদের সঙ্গে থাকতে পারবেন।


বি.: দ্র.: দয়া করে টিভির রিমোটের দিকে নজর দেবেন না।