চোখের নিচের কালো দাগ দূর করে নিজেকে করে তুলুন আকর্ষণীয়!

রূপচর্চা/বিউটি-টিপস 1st Apr 17 at 8:12am 775
Googleplus Pint
চোখের নিচের কালো দাগ দূর করে নিজেকে করে তুলুন আকর্ষণীয়!

চোখের নিচে কালো দাগের সমস্যা কমবেশি অনেকেরই রয়েছে। চোখের নিচের কালি অনেকেরই দুশ্চিন্তার কারণ। আবার উল্টোভাবেও বলা যায়, দুশ্চিন্তার কারণেও কালি পড়ে চোখের নিচে।একটু বাড়তি যত্ন এবং সাবধানতা এই সমস্যার সমাধান করতে পারে খুব সহজেই। চোখ অনেক স্পর্শকাতর একটি জায়গা। তাই প্রাকৃতিক উপায়ে চোখের পরিচর্যা করলে এই দাগ দূর হওয়ার পাশাপাশি এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও থাকবে না এবং চোখের চারপাশ হবে আরো উজ্জ্বল ও প্রাণবন্ত।


বয়স বাড়ার জন্য,রুক্ষতার জন্য,অনেকক্ষণ স্ক্রিনের সামনে বসে কাজ করার ফলে বা অনেক সময় বংশপরম্পরায় অনেকেই ডার্ক সার্কেলের সমস্যায় ভোগেন। আমাদের চোখের চারপাশের চামড়া মুখের অন্য জায়গার থেকে অনেক বেশি পাতলা।


মুখের এই অংশে কোনও অয়েল গ্লান্ড থাকে না। তাই সব বয়সের মেয়ে বা ছেলেদের এই জায়গার বিশেষ কেয়ার নেওয়া উচিত। এটা মোটেই কোন সিরিয়াস স্কিন প্রবলেম নয়। জেনে নিন সহজ ঘরোয়া পদ্ধতি,যার মাধ্যমে মুছে ফেলতে পারবেন ডার্ক সার্কেলের কালো ছায়া।


চোখের নিচে কালো দাগ দূর করার কার্যকর উপায়


১) একটি আলু ঘষে তার থেকে রসটা নিয়ে পরিষ্কার তুলোয় লাগান।ঐ তুলো চোখের উপর রাখুন,খেয়াল রাখবেন চোখের পাতা এবং চোখের তলা যেন ভালোভাবে ঢাকা থাকে।১০ মিনিট রেখে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।


২) দিনে দুবার করে টম্যাটো আর লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে ডার্ক সার্কেলের উপর লাগান।খুব তাড়াতাড়ি ফল পাবেন।


৩) ৫টি আমন্ড বাদাম অল্প একটু দুধ দিয়ে বাটুন।তারপর ক্ষতিগ্র্স্ত-তে ১৫ মিনিট লাগিয়ে রাখুন।এক সপ্তাহ রোজ লাগালেই ফল দেখতে পাবেন।


৪) আনারসের রস আর একটু হলুদ গুঁড়ো দিয়ে একটি পেস্ট বানান,১০ মিনিট লাগিয়ে রেখে ধুয়ে ফেলুন।


৫) রাতে শোয়ার আগে চোখের চারপাশে ভিটামিন ই এবং সি সমৃদ্ধ ক্রিম লাগান।


৬) পুদিনা পাতা বেটে লাগালেও খুব উপকার পাবেন,শুধু তাই নয় ক্লান্ত চোখের জন্যেও এটা খুব উপকারী।


৭) ডিমের সাদা অংশ নিয়ে চোখের চারপাশে লাগান,১৫ মিনিট লাগিয়ে রাখুন।এতে চোখের চারপাশের চামড়া টান টান হবে এবং ডার্ক সার্কেলও কমবে।


৮) শশার রস ডার্ক সার্কেলের জন্য খুবই উপকারী। শশার রস আর লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে লাগালে তাড়াতাড়ি কাজ হবে।


৯) দিনে দুবার করে গোলাপ জল লাগালে খুব উপকার পাবেন।২০ মিনিট রাখুন তারপর ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।


১০) দু ফোঁটা আমন্ড অয়েল নিয়ে ঘুমোতে যাওয়ার আগে চোখের চারপাশে লাগান এবং আস্তে আস্তে ম্যাসাজ করুন। সারা রাত রেখে দিন,সকালে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।


১১) চায়ের ব্যাগ দিয়ে ও চোখের নিচে কালি দূর করা সম্ভব। সবুজ বা কালো চায়ের ব্যাগ ঠান্ডা করে নিন। আপনার চোখের ওপর ঠান্ডা চায়ের ব্যাগটি রাখুন। ১০/ ১৫ মিনিট পর চায়ের ব্যাগ সরিয়ে ফেলুন। দিনে ২/৩ বার করার চেষ্টা করুন।


১২) প্রতিদিন ঠাণ্ডা দুধ ব্যবহারে আপানার চোখের নীচের কালো দাগ দূর করে থাকে। তুলার বল ঠাণ্ডা দুধে ভিজিয়ে নিন। ভেজা তুলার বল আপানার চোখে ওপর রাখুন। ১০/১৫ মিনিট পর তুলা সরিয়ে নিন। এরপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি প্রতিদিন করাতে আপানার চোখের নীচের কালির দাগ করবে।


১৩) কমলার রস চোখের কালি দূর করার অন্যতম একটি উপায়। কমলার রসের সাথে কয়েক ফোঁটা গ্লিসারিন মিশিয়ে নিন। এটি চোখের নিচে লাগান। এটি শুধু চোখের নীচের কালি দূর করবে না আপনার চোখের গ্লো বাড়িয়ে দিবে বহুগুণ।


আরও বিশেষ এক পদ্ধতির কথা জানানো হচ্ছে ভুক্তভোগীর কল্যানে


কফি শরীরকে চাঙ্গা করার পাশাপাশি ত্বককেও চাঙ্গা করে! এতে যে ক্যাফেইন উপাদান রয়েছে, সেটি ত্বকের জন্য বেশ কার্যকর। এটি চোখের নিচের কালো দাগ দূর করে এবং রুক্ষতা দূর করে ত্বককে উজ্জ্বল করে।


চোখের নিচের কালো দাগ ও ফোলাভাব দূর করতে কফি খুবই উপকারী। এক চা চামচ কফির সঙ্গে পানি মিশিয়ে ঘন মিশ্রণ তৈরি করুন। এবার চোখের চারপাশে লাগিয়ে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। শুকিয়ে গেলে হালকাভাবে ম্যাসাজ করে ধুয়ে ফেলুন। এরপর ময়েশ্চারাইজার ক্রিম লাগান। এভাবে নিয়মিত ঘুমের আগে কফি ব্যবহার করলে চোখের নিচের কালো দাগ ও ফোলাভাব দুটোই দূর হবে।


স্ক্রাবারের কাজ করে


ত্বকে স্ক্রাবারের কাজ করে কফি। অলিভ অয়েলের সঙ্গে সামান্য কফি মিশিয়ে পুরো মুখে হালকাভাবে ম্যাসাজ করুন। এতে মুখের মরা কোষ দূর হয়ে ত্বক হবে নরম ও মসৃণ।


অতিরিক্ত তেল ও ব্লাকহেডস দূর করে


কফি তেল বা পানির সঙ্গে মিশিয়ে মুখে ম্যাসাজ করুন। ম্যাসাজের সময় নাকের ওপর ভালোভাবে ঘষুন। এতে ব্লাকহেডস দূর হবে এবং ত্বকের অতিরিক্ত তেলতেলে ভাবও দূর হবে।


ত্বক উজ্জ্বল করে


নিয়মিত কফি দিয়ে তৈরি প্যাক ব্যবহারে ত্বক হয় উজ্জ্বল ও দাগহীন। এ ছাড়া ম্যাসাজ করার কারণে ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বেড়ে যায় এবং এটি ত্বকের লাবণ্যতা ধরে রাখে।


বিশেষ দ্রষ্টব্য – হরমোনজনিত সমস্যা বা অন্য কোনো শারীরিক সমস্যার কারণে চোখের নিচে কালো দাগ হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। তবে বংশানুক্রমিকভাবে চোখের নিচে কালি হলে, তা দূর করার জন্য তেমন কিছুই করার থাকে না।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 20 - Rating 5 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)