যেভাবে বুঝবেন সঙ্গী আপনার ওপর কর্তৃত্ব করছে

লাইফ স্টাইল February 17, 2017 618
যেভাবে বুঝবেন সঙ্গী আপনার ওপর কর্তৃত্ব করছে

অনেক সময় সঙ্গীর খবরদারি কিংবা কর্তৃত্বকে আমরা ভালোবাসা মনে করে ভুল করি। সবকিছুর জন্য অনুমতি নেওয়া, হিসাব দেওয়া কিংবা জবাবদিহি করার মানে ভালোবাসা নয়। এটা এক ধরনের কর্তৃত্ব খাটানো, যা আপনি বুঝতেই পারছেন না। সঙ্গী আপনার ওপর কর্তৃত্ব করছেন কি না, এটা নিচে দেওয়া এই লক্ষণগুলো দেখলেই বুঝবেন।


১. বন্ধুদের সঙ্গে দেখা করতে হলে আপনার সঙ্গীর কাছ থেকে অনুমতি নিতে হয়। সঙ্গী যদি বলেন আজ না কাল, তাহলে আপনাকে কালই যেতে হয়। এমনকি আপনি কোন বন্ধুর সঙ্গে মিশবেন আর কোন বন্ধু থেকে দূরে থাকবেন, সেটাও সঙ্গী বাছাই করে দেন! এই লক্ষণই বলে দিচ্ছে, সঙ্গী আপনার ওপর কতটা কর্তৃত্ব করছে।


২. আপনার ফোনের ওপর আপনার থেকে সঙ্গীর নজর বেশি। ফোনে কী করছেন, কার সঙ্গে কথা বলছেন কিংবা সারাক্ষণ ফোন হাতে থাকে কেন—এই জবাবদিহি আপনাকে প্রতিনিয়তই করতে হয়। এর মানে ভালোবাসা নয়, এটাকে ব্যক্তিস্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করা বোঝায়।


৩. কোন পোশাক পরতে হবে, কোথায় বেশি সাজা যাবে না—এটা যদি সঙ্গীই ঠিক করে দেন, তাহলে আপনার ইচ্ছার মূল্য কোথায়? এগুলোতেও যে সঙ্গী খবরদারি করেন, তাঁর সঙ্গে জীবন কাটানো খুবই কষ্টকর। কারণ, সারা জীবনই তিনি আপনার ওপর এভাবে কর্তৃত্ব করবেন।


৪. ফোন ধরতে দেরি হলে সঙ্গী আপনার খুবই বাজে আচরণ করেন। এর মানে এই নয় যে তিনি আপনার চিন্তায় অস্থির হয়ে গেছেন। আপনাকে তিনি সন্দেহ করছেন এবং এমন যেন আর না হয়, এ কারণে খারাপ আচরণ করে আপনাকে আয়ত্তে রাখার চেষ্টা করছেন। এ ধরনের কর্তৃত্ব কার ভালো লাগবে বলুন?


৫. আপনার মনে কী আছে, এটা সঙ্গীকে বলতে ভয় পান। কারণ আপনি জানেন, সঙ্গী আপনার কোনো মতামত বা চিন্তাকে সায় দেবেন না। এর মানে শুরু থেকেই সঙ্গী আপনার ওপর কর্তৃত্ব করে যাচ্ছেন।


৬. টাকা খরচ করার বিষয়ে সব সময় আপনাকে সঙ্গীর অনুমতির জন্য অপেক্ষা করতে হয়। এমনকি খরচ একটু বেশি করে ফেললে সঙ্গীর কাছে আপনাকে জবাবদিহি করতে হয়। এটা কর্তৃত্ব ছাড়া আর কী বলুন?


৭. যেকোনো সময় সঙ্গী আপনাকে অপমান করে কথা বলে। আর এটা আপনাকে সহ্য করতে হয়। কারণ, আপনি তাঁকে কিছুই বলতে পারেন না। সঙ্গীর এমন কর্তৃত্বের জন্য আপনিই দায়ী। শুরুতেই যখন সঙ্গী এমন আচরণ করেছে, তখন থেকেই আপনার প্রতিবাদ করা উচিত ছিল। এখন চাইলেও আপনার কথা সঙ্গীর কান পর্যন্ত পৌঁছায় না।