সুদের টাকায় মসজিদ বানানো যাবে?

ইসলামিক শিক্ষা February 11, 2017 1,906
সুদের টাকায় মসজিদ বানানো যাবে?

প্রশ্ন : সুদের টাকায় মসজিদ, মাদ্রাসা কি করা যাবে?


উত্তর : মসজিদ ও মাদ্রাসা দুটাকে একসঙ্গে করে দিয়েছেন। এটি ভুল কাজ। এটা আমাদের পরিভাষার মধ্যে কীভাবে যেন একসঙ্গে মিশে গেছে। আমরা মসজিদ বলতে মাদ্রাসা আর মাদ্রাসা বলতে মসজিদ বুঝি। কিন্তু এ দুটি আলাদা প্রতিষ্ঠান।


মাদ্রাসা হলো স্কুল, প্রতিষ্ঠান এবং সেটা ভিন্ন একটি বিষয়। মসজিদ হলো উপাসনালয়, ইবাদত, আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের ঘর, আল্লাহর ঘর। সুতরাং, বিশাল পার্থক্য রয়েছে।


মাদ্রাসা আপনি যেকোনো টাকা দিয়ে নির্মাণ করতে পারেন, সেটি জায়েজ। কিন্তু মসজিদ নির্মাণের কাজে উত্তম হচ্ছে, সেখানে সুদের টাকা বা হারাম টাকা ব্যবহার না করা। এটি হচ্ছে মসজিদ নির্মাণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।


কারণ, মসজিদ হচ্ছে আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের ঘর এবং এটি আল্লাহ সুবানাহুতায়ালার সন্তুষ্টির জন্য করা হয়ে থাকে। তাই এখানে যেন কোনো হারাম টাকা বা হারাম উপার্জন না ঢোকে, সেটি চেষ্টা করা হচ্ছে উত্তম।


এই উত্তমের মধ্যে আমরা ইঙ্গিত দিচ্ছি যেটা সেটা হলো, যদি কোনো কারণে কোনো প্রয়োজন দেখা দেয় যে মসজিদ নির্মাণে ব্যাহত হচ্ছে, মুসল্লিরা সালাত আদায় করতে পারছেন না, তাহলে সে ক্ষেত্রে যদি এই টাকা কেউ ব্যবহার করেন, তাহলে সেটা তাঁর জন্য জায়েজ রয়েছে, তিনি ব্যবহার করতে পারবেন।


সূত্রঃ আপনার জিঙ্গাসা, এনটিভি অনলাইন