দুপুরের ঘুম হোক শান্তিময়

লাইফ স্টাইল December 4, 2016 812
দুপুরের ঘুম হোক শান্তিময়

ছুটির দিনে দুপুরে পেট পুরে খাওয়া দাওয়া অবশ্যই করতে হবে। এরপর বিছানায় শরীরটা ছেড়ে না দিলেই নয়। তারপর টানা তিন ঘণ্টার ঘুম। ঘুম থেকে উঠে ফেস্টিভ মুডে ছবি দেখতে শপিং মলে। এই গোটা প্রক্রিয়ার একটু এদিক ওদিক হলেই ঝামেলা। বিশেষত ওই তিন ঘণ্টার ঘুমটাতে ব্যাঘাত ঘটে টাহোলে পুরো দিনটাই মাটি।


• ছুটির দিনে দুপুরের ঘুম যাঁদের আবশ্যিক তাদের ঘুমকে দীর্ঘ ও আরও সুখের করতে জন্য রইল কিছু পরামর্শ....


১। অ্যালার্ম নয়:‌ আরে ছুটির দিনেও অ্যালার্ম বাজাবেন?‌ ঘুমের মধ্যে কানের কাছে ট্যাং ট্যাং করে তো রোজই বাজে। আজ না হয় ফোন বন্ধ করে ঘুমোতে যান। অ্যালার্ম দেবেন না। তাতে ঘুম অনেক শান্তির হবে।


২। খাওয়া অবশ্যই:‌ বিছানায় যাওয়ার আগে পেট পুরে খেয়ে নেওয়া দরকার। দুপুরের খাবারে অনেকেই নিশ্চয়ই মাছ মাংসের নানা পদের রান্না করবেন। তাদের বলছি, খান, যতটা পারবেন পেট ভাসিয়ে খান। খেয়েই শুয়ে পড়বেন। এখন শীতকাল, আপনার ঘুমের ইচ্ছা থাকলেই কয়েক মিনিটে আরামের ঘুম চলে আসবে।


৩। কফি–চা নয়:‌ অনেকেরই অভ্যাস আছে, মধ্যাহ্নভোজ বা রাতের খাবারের পর কফি বা চা খান। এই অভ্যাস ছাড়তে হবে। এতে আপনার স্নায়ুর উপর চাপ পড়ে। আর ঘুম আসতে চায় না। তাই বিছানায় যাওয়ার আগে চা কফি না খাওয়াই ভাল।


৪। ঘুমের আগে ভারি কাজ নয়:‌ দুপুরের ঘুমের আগে খুব ঝামেলার কাজ কিছু না করাই ভাল। খেতে যাওয়ার আগে যা কাজ আছে করে ফেলুন। তারপর শুধু খাওয়া। দরকার পড়লে খাওয়ার পর একটু বই পড়তে পারেন, শুয়ে শুয়েই। আর কিছু করবেন না।


৫। মদ–সিগারেট নয়:‌ খাওয়ার পরেই একটা সুখটান অনেকের প্রিয়। কিন্তু মদ বা সিগারেট উত্তেজন, স্নায়ুকে উত্তেজিত করতে যথেষ্ট। তাই ঘুমের আগে সেই উত্তেজনা ভাল নয়। কারণ স্নায়ু উত্তেজিত হলে আপানার ঘুম হবেই না। চোখ খুলে শুয়ে থাকতে হবে বিছানায়।