ভালবাসা প্রকাশ করুন যত্নের সাথে

লাইফ স্টাইল 24th Nov 16 at 9:25am 1,438
Googleplus Pint
ভালবাসা প্রকাশ করুন যত্নের সাথে
ভালবাসা শুধু অনুভবের বিষয়- এই ভাবনা ভুল। ভালবাসা প্রকাশ করা একটি স্বাস্থ্যকর সম্পর্কের জন্য খুবই জরুরি। এমন আশা করার কোন মানে নেই যে, আপনার মনের কথা আপনার সঙ্গী নিজেই বুঝে নেবেন। এভাবে বুঝতে গেলে সঠিক বোঝার পরিবর্তে ভুল বোঝার সম্ভাবনাই বেশী। সেই ঝুঁকিতে না গিয়ে মনের ভাব স্পষ্ট প্রকাশ করাই কি বুদ্ধিমানের কাজ নয়?

• যারা মনের ভাব প্রকাশে তেমন একটা পারদর্শী নন তাদের জন্য রইল কিছু টিপস....

১। সঙ্গীর পছন্দের উপহার দিন, নিজের নয়
জন্মদিন বা অন্যকোন উপলক্ষ্যে উপহার তো দিতেই হবে প্রিয়জনকে, তাই না? তাকে তার পছন্দ অনুযায়ী উপহার দিন। আমরা বেশীরভাগ সময়ই নিজের পছন্দ থেকে বেরিয়ে আসতে পারি না। আপনার সঙ্গীর জন্য পোশাক কিনতে গেলেন। আপনার অপছন্দের রংটিই হয়ত তার প্রিয় রঙ। তার প্রিয় রঙের পোশাকই কিনুন। তার পছন্দকে সম্মান করুন। উপহারের মূল্যায়ণ টাকায় হয় না, হয় যত্নে।

২। মুখে বলুন ‘ভালবাসি’, কাজেও
আপনার সঙ্গী জানেন আপনি তাকে কতটা ভালবাসেন। তবু সেটা মুখে বলা এবং কাজে প্রকাশ করা জরুরি। কোন একদিন সাধারণ নাস্তার বদলে তার পছন্দের নাস্তা তৈরি করুন। তার পছন্দের পোশাকটি পরুন। তার জন্য সারপ্রাইজ ডিনারের আয়োজন করুন। তাকে বুঝতে দিন, তার সাথে সময় কাটাতে কতটা ভাল লাগে আপনার।

৩। প্রশংসা করুন
সঙ্গীর ছোটবড় সকল গুণের জন্য তার প্রশংসা করুন। মানুষ তার শৈশবে নতুন একটা জামা পরলে, একটা আম আঁকলে, কোন উপহার পেলে সবাইকে দেখায়, সে চায় সবাই যাতে প্রশংসা করে। বড় হয়ে আমরা চেয়ে প্রশংসা পেতে পছন্দ করি না। আমরা মনে করি, আমরা যার যোগ্য পৃথিবী তার স্বীকৃতি দেবে নিজেই। আপনার সঙ্গীও মুখে না বললেও প্রত্যাশা করেন। তাকে তার প্রাপ্য স্বীকৃতি অবশ্যই দিন।

৪। সঙ্গীর স্বাচ্ছন্দ্যের দিকে খেয়াল রাখুন
আপনার সঙ্গী একজন ভিন্ন ব্যক্তিসত্ত্বার অধিকারী। তার ভিন্ন পছন্দ-অপছন্দ রয়েছে। আপনি যেখানে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন তিনি হয়ত সেখানে আনন্দ পান না, বিব্রতবোধ করেন। এই বিষয়গুলো খেয়াল রাখুন। নিজের পছন্দ চাপিয়ে দেবেন না।

৫। অভিযোগ করা থেকে বিরত থাকুন
অভিযোগ একটি সম্পর্ককে ধ্বংস করে দিতে পারে পুরোপুরি। অভিযোগ করা থেকে বিরত থাকুন। আপনার প্রত্যাশাগুলো বুঝিয়ে বলুন। নিজে কিছুটা ছাড় দিন, মানিয়ে নিন। তাকেও মানিয়ে নিতে উৎসাহ দিন। আপনাদের ভালবাসাই ধরে রাখবে সম্পর্কের মাধুর্য।

৬। কখনোই তুলনা করবেন না
ভুল করেও সঙ্গীকে অপরের সাথে তুলনা করবেন না। এটি খুবই অপমানজনক। আপনি যখন আপনার সঙ্গীর কোন কমতি বোঝাতে তাকে অপর কারও যোগ্যতার সাথে তুলনা করেন তখন আপনি পরোক্ষভাবে আপনি তাকে অযোগ্য বলে ঘোষণা করেন। তুলনা করার এই মানসিকতা আপনাদের সম্পর্ককে বিষাক্ত করে তুলবে।
Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 16 - Rating 4 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)