বাংলাদেশ... দ্যা ল্যান্ড অফ প্রতিভাস

ফেসবুকীয় লেখা June 3, 2016 1,991
বাংলাদেশ... দ্যা ল্যান্ড অফ প্রতিভাস

লিখে আর কতো হবে


তাই এক চ্যানেলকে বললাম, আমাকে ১টা ক্লিপ বানিয়ে দেন শেয়ার করি


কিছু হিডেন ক্যামেরা লাগবে


ক্লিপে দেখা যাবে একটা নির্জন রাস্তায় আপনার সামনের লোকটি হাঁটতে হাঁটতে অমনোযোগী হয়ে তার মানিব্যাগ রাস্তায় ফেলে দিয়েছে


আপনারা লুকিয়ে লুকিয়ে রেকর্ড করবেন, কে দৌড়ে এসে সেই মানিব্যাগটা উঠিয়ে সেই লোকটাকে ফেরত দেয়


যে ফেরত দিবে, তাকে ফেরত দেয়ার পরে ডেকে ক্যামেরার সামনে একনোলেজ করা হবে এই ভালো কাজের জন্য


আর যারা ফেরত দিবে না, তাদের মুখ ঝাপসা করে দেয়া হবে


অতীব শিক্ষণীয় ক্লিপ... এটলিস্ট বাচ্চারা এটা দেখে শিখতে পারবে যে ‘এভবে কুড়িয়ে পাওয়া জিনিস ফেরত দিতে হয় আর হ্যা, আশেপাশে কিছু ভালো মানুষ আজও আছে’


... বেচারারা চ্যানেলের কলাকুশুলিরা সারাদিন হিডেন ক্যামেরা নিয়ে বসে রইলো, কিন্তু কেউ দেখি মানিব্যাগ কুড়িয়ে পাওয়ার পর আর ফেরত দেয় না


ট্রাস্ট মি, সারা দিনে বেশ কয়েকবার ফেলা হলো, ১ জনকেও পাওয়া গেল না যে দৌড়ে এসে মানিব্যাগটা রাস্তা থেকে উঠিয়ে উনাকে বলবে


এক্সপেরিমেন্টটা এমন ভাবে ফ্লপ হবে, আমার ধারনাই ছিলো না


... কতো কিসিমের মানুষ যে দেখা গেল;


কিছু মানুষ যেয়ে মানিব্যাগের উপর পাড়া দিয়ে কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে রইলো... তারপর আশেপাশে কেউ আছে নাকি দেখে, জুতার ফিতা বাঁধতে বসল


কিছু মানুষ পা দিয়ে লাত্থায়ে দেখলো, মানিব্যাগের ভিতরে কিছু আছে নাকি... যদি আবছা আবছা দেখা যায় কিছু আছে, তাহলে তারা জুতার ফিতা বাঁধতে বসলো


কিছু মানুষ থোড়াই কেয়ার করে হেঁটে গেলেন এমন ভাবে যে, ‘সচেতন না হলে মানিব্যাগ তো পরবেই... এবার ভুগো’


একজনকে পাওয়া গেল, যিনি লুঙ্গি আর স্পঞ্জের স্যান্ডেল পরে হাঁটছিলেন ... তিনি মানিব্যাগটা দেখে, সেটার কাছে যেয়ে পা দিয়ে কি একটা কেরামতি করলেন, মানিব্যাগ ভেনিশ হয়ে গেল


প্রথমে ভাবলাম উনার লুঙ্গির ভিতরে বুঝি আরেকটা হাত আছে


পরে ক্যামেরা জুম করে দেখা গেল; তিনি কিভাবে জানি মানিব্যাগটা, স্পঞ্জের সেন্ডেল আর তার পায়ের মাঝে স্যান্ডউইচের মতো করে নিয়ে হাঁটছেন


প্রতিভা রে ভাই প্রতিভা


সন্ধ্যা হওয়ার আগে কাউকেই পাওয়া গেল না... শিক্ষামূলক ক্লিপটার ইজ্জত বাঁচানোর জন্য পরে ঠিক করা হলো আমাদের নিজেদের একজন দিয়ে অভিনয় করে হলেও ‘কিছু ভালো মানুষ যে পৃথিবীতে আছে’, এটা দেখাতে হবে


শট নেয়ার আগ মুহূর্তে দেখা গেল কোন পকেটমার জানি এতকিছুর মাঝেও সেই আর্টিস্টের পকেট থেকে সেই ফেইক মানিব্যাগ শুদ্ধা, ওরিজিনালটাও মেরে দিয়েছে


আশেপাশে এতো প্রতিভা ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে যে শুটিং প্যাক-আপ করতে হলো


... ক্লিপটা শীঘ্রই আসছে


এতো মানুষের মুখ ঝাপসা করতে হয়েছে যে, পুরো ক্লিপটা দেখলে আপনার চোখ এমনিতেই ঝাপসা হয়ে আসবে


আর তাই যদিও ক্লিপের নাম আগে ঠিক করা হয়েছিল, “ভালো মানুষ ... আজও কিছু আছে”


কিন্তু এখন ক্লিপটা আসছে, “বাংলাদেশ... দ্যা ল্যান্ড অফ প্রতিভাস” নামে


পজিটিভ কিছু দেখাতে নেমে... নেগেটিভ কিছু দেখাই কেমনে?


------Arif R Hossain